,


প্রিয়াঙ্কা চোপড়া পোশাকের কারণে বিতর্কের জন্ম দিয়েছেন।

প্রিয়াঙ্কা চোপড়া পোশাকের কারণে বিতর্কের জন্ম দিয়েছেন।

বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। বিতর্ক যেন পিছুই ছাড়ছে না তাকে। এবার বিতর্ক উঠলো তার পোশাক নিয়ে। অসম ট্যুরিজমের বিজ্ঞাপনে ছোট মাপের ফ্রক পরায় অসম কংগ্রেস সমালোচনার মুখে পড়েন প্রিয়াঙ্কা।

বলিউড অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ২০১৬ সাল থেকে আসাম ট্যুরিজম বোর্ডের একজন ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর। সম্প্রতি প্রকাশিত একটি ক্যালেন্ডারে প্রিয়াঙ্কার এক্সক্লুসিভ ছবি দেওয়া হয়েছে। আর তাতেই হয়েছে মাঠ গরম।’যৎসামান্য কাপড়’ পরে আসাম সংস্কৃতির ‘বদনাম’ করেছেন প্রিয়াঙ্কা- এমন অভিযোগ তুলে সংসদ নন্দিতা দাস ও রূপজ্যোতি কুর্মি বলেন, অসমীয় সমাজের প্রতি সম্মান দেখানো সরকারের দায়িত্ব। ‘ফ্রক’ কোনো অসমীয় পোশাক নয় এবং ক্যালেন্ডারের ছবিগুলোও খুব একটা রুচিশীল নয়। আমাদের সম্মান রক্ষার দায়িত্ব নিশ্চয়ই সরকারের ওপরই বর্তায়। ওই ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডরের কোনো ঐতিহ্যবাহী পোশাক পরা উচিত ছিল। আর তাই আমরা এই ক্যালেন্ডারটির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করছি। সেই সাথে তাঁরা ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর-এর পদ থেকে প্রিয়াঙ্কার অপসারণও দাবি করেন।

প্রিয়াঙ্কা চোপড়া পোশাকের কারণে বিতর্কের জন্ম দিয়েছেন।

আসাম পর্যটন উন্নয়ন করপোরেশনের চেয়ারম্যান জয়ন্ত মালা বড়ুয়া একটি সংবাদমাধ্যমকে বলেন, আন্তর্জাতিকভাবে আসামকে তুলে ধরার জন্যই এ ক্যালেন্ডার করা হয়েছে। বহুজাতিক ট্যুর অপারেটরদের দৃষ্টি আকর্ষণই ক্যালেন্ডার তৈরির উদ্দেশ্য। প্রিয়াঙ্কা একজন আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন তারকা। আর তাকে এভাবে উপস্থাপন কোনোভাবেই আসামের সংস্কৃতির বিরুদ্ধাচরণ নয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


এ সম্পর্কিত আরও পোস্ট দেখুন